রবিবার ৭ জুন ২০২০

২৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

ই-পেপার

১৫ মে ২০২০ : ০৩ : ৩২

আলহাজ্ব মোহাম্মদ হাছান এর ব্যতিক্রমী ত্রাণ বিতরণ

নূর মোহাম্মদ রানা।। বতর্মান করোনা পরিস্থিতিতে বড়ো বড়ো শিল্পপতি/ ধর্নাঢ্য ব্যক্তিরা যখন " নিরবতার সংস্কৃতি " অনুসরণ করে আয়েশী জিন্দিগীর ভীত রচনায় ব্যস্ত - ঠিক তখনই আমরা লক্ষ্য করলাম অসহায় মানুষের সেবায় বরাবরের মতোই এগিয়ে আসলেন -দেশের স্বনামধন্য ব্যবসা প্রতিষ্ঠান - এম হাছান গ্রুপ অব কোম্পানির চেয়ারম্যান জনাব আলহাজ্ব মোহাম্মদ হাছান।

তিনি এই বৈশ্বিক করোনা পরিস্থিতির শুরুতেই বেশকিছু ব্যতিক্রমধর্মী উদ্যোগ গ্রহণ করে রীতিমত আলোড়ন সৃষ্টি করেন। ত্রাণ বিতরণের পাশাপাশি সাধারণ মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধির উদ্যোগ গ্রহণ ছিল চোখে পড়ার মতো, যার ধারাবাহিকতার অংশ হিসেবে তিনি হাজার হাজার পিস হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরী করে সাধারণ মানুষের মাঝে বিতরণ করেন, সাথে সাথে হ্যান্ড গ্লাভস, মাস্কও ফ্রি বিতরণ করেন, বাজারে তখন উক্ত পনের সংকট চরমে, বাজারে হ্যান্ড স্যানিটাইজার সংকট মোকাবেলায় তখন তার এই উদ্যোগের প্রশংসা করেন মানুষ।

চট্টগ্রাম শহরের আনাচে - কানাচে জীবাণুনাশক ঔষধ ছিটিয়ে, শহরকে জীবাণুমুক্ত করায় অগ্রণী ভুমিকা পালন করেন তিনি। এই উদ্যমী তরুণ শিল্পপতি - নিত্যপ্রয়োজীয় চাল-ডাল, তেল, পেয়াজ, আলু, লবণ, সাবান প্যাকেট করে প্রতিদিন পৌছে দিয়েছেন শত শত অভাবগ্রস্ত মানুষের ঘরে ঘরে।

এরই মধ্যে তিনি ' হাছান গ্রুপ অব কোম্পানি 'র পক্ষ থেকে ১২০ টন চালসহ অন্যান্য খাদ্যসামগ্রী প্রায় বিশ হাজার পরিবারে পৌঁছনোর ব্যবস্থা করেন। পরিশ্রমী সৎ এই আওয়ামীলীগ নেতা তার নিজ জম্মস্হান রাউজান সহ চট্টগ্রামের অভাবগ্রস্থ মানুষের মাঝে এই ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন।

রমজান মাসকে সামনে রেখে তিনি এবার গ্রহণ করেন ব্যতিক্রমি এক উদ্যোগ, প্রতিবছর রমজানের ইফতার সামগ্রী বিতরণ জনাব হাছানের একটি মানবিক আচরণ, এবছরের ভিন্নধর্মী আয়োজন সবার প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি, লকডাউনের কথা বিবেচনা করে তিনি এবার অগ্রিম ইফতার সামগ্রী অসহায় রোজাদারদের ঘরে ঘরে পৌছিয়ে দেন, তাছাড়াও রমজানের শুরুতেই অসহায় বাস্তুহারা মানুষের জন্য রান্না করা সেহরী বিতরণ অব্যহত রেখেছেন জনাব হাছান, যা সত্যিই এক ভিন্নধর্মী আয়োজন, এই করোনা সৃষ্ট মহামারিতে এই উদ্যোগের ফলে অনেক অসহায় বাস্তুহারা রোজাদার উপকৃত হবে নিঃসন্দেহে।

দানশীল ব্যক্তিত্ব জনাব হাছান সাম্প্রতিক করোনা মহামারি মোকাবেলায় সি এম পি, জেলা পুলিশসহ আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর গঠিত ত্রাণ কার্যক্রমে নিজেকে উদারচিত্তে সম্পৃক্ত রেখেছেন, করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য চট্টগ্রামের ফৌজদারহাটে গঠিত হাসপাতালে দিয়েছেন আর্থিক অনুদান। আর্থিকভাবে দূর্বল - অসচ্ছল দলীয় নেতাকর্মীদের প্রতিও তিনি বাড়িয়েছেন সহযোগীতার হাত।

রাউজানের প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা সামসুল আলমের সুযোগ্য সন্তান প্রচারবিমুখ দানবীর - আলহাজ্ব মোহাম্মদ হাছান অনেকটা আক্ষেপ করেই বলেন "" জানিনা আমার সীমিত সামর্থ্যে অসহায় মানুষের মানবিক চাহিদা কতটুকু পূরণ করতে পেরেছি, তবে আমি আমার সাধ্যানুযায়ী সর্বোচ্চ চেষ্টা করে যাবো এই জনপদের গরীব অসহায় মানুষের পাশে থাকার, আমার মাঝে কোনো উচ্চাঙ্খা নেই, সামনের দিনগুলোতে মানুষ হিসেবে মানুষের পাশে থেকে " মানুষ মানুষের জন্য,, এই প্রত্যয়ীতে বিশ্বাসী এই আমি একজন ভালো মানুষ হিসাবে বেচে থাকতে চাই"